Connect with us

Hi, what are you looking for?

Newsbd71Newsbd71

লাইফস্টাইল

করোনা রোগীর বাড়িতে দেখাশোনা

করোনা রোগীর বাড়িতে দেখাশোনা
করোনা রোগীর বাড়িতে দেখাশোনা

লাইফস্টাইল ডেস্ক
ঢাকা : প্রতিদিন হাজার মানুষ আক্রান্ত হচ্ছে এই মহামারি করোনা ভাইরাসে। ধীরে ধীরে এটি বেশ কাছেই চলে এসেছে বলা যায়। চারদিকে বাড়বে মানুষের চলাফেরা। এই অবস্থায় করোনার প্রকোপ আরও বাড়তে পারে।

কাছের কেউ যদি আক্রান্ত হয়েই যায়, এই অবস্থায় জানতে হবে কীভাবে বাড়িতেই দেখাশোনা করবেন করোনা ভাইরাসের রোগীর।

ভারতের মুম্বাই অ্যাপোলো হাসপাতালের সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ ড. লক্ষ্মণ জেসানি পরামর্শ দিলেন, হাসপাতালে না গিয়ে নিজে নিরাপদে থেকে কীভাবে ঘরেই রোগীর পরিচর্যা করতে হবে:

যদি কেউ অসুস্থতা বোধ করেন তাহলে রোগীর নিজের থেকেই সচেতন হতে হবে

পরিবারের সবাইকে নিরাপদে রাখতে সংক্ৰমিত রোগীকে একা বাথরুমসহ একটা ঘরে রাখতে হবে

রোগীর সঙ্গে কথা বলা বা তার দেখাশোনা করার সময় মাস্ক ও গ্লাভস পরতে হবে

খুব প্রয়োজন না হলে তার সঙ্গে এক মিটার দূরত্ব রেখে কাজগুলো করে দিন, যেমন ওধুষ বা খাবার খাওয়ানো

সংক্ৰমিত ব্যক্তির কাছে গেলে বারবার সাবান পানিতে হাত ধুতে হবে বা এলকোহল যুক্ত স্যানিটাইজার দিয়ে হাত পরিষ্কার করতে হবে

বাচ্চাদের, বয়স্কদের আক্রান্ত রোগীর থেকে দূরে রাখুন

রোগীকে প্রচুর পরিমাণে পানি ও ফলের জুস, হালকা গরম স্যুপ ও আদা, গোলমরিচ, লবঙ্গ দিয়ে চা পান করতে দিন। মাছ, মুরগির মাংস, ফলসহ পুষ্টিকর খাবার খাওয়ান

শ্বাসকষ্ট থাকলে অবহেলা করবেন না। নিয়মিত ডাক্তার ও হাসপাতালের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে হবে

কোনো ব্যক্তির মধ্যে যদি রোগের লক্ষণ থাকে তাহলে তাকে চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে ১৪ থেকে ১৭ দিন আইসোলেশানে থাকতে হবে।

এছাড়া যদি হালকা জ্বর হলে ১০ দিন নিজেকে আলাদা রাখুন।

আতঙ্কিত না হয়ে, মানসিক শক্তি ধরে রাখুন, নিয়ম মেনে চলুন। করোনা পরাজিত হোক, সচেতনতার কাছে।

নিউজবিডি৭১/এম কে/ ০৬ জুন ২০২০

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ফেসবুকে ২৪ লক্ষের পরিবার

বাংলাদেশ

বাংলাদেশ

গত দুই মাসের মধ্যে তিন দফা বন্যার কবলে পড়েছে সিলেট-সুনামগঞ্জ৷ তবে এবারের বন্যা ভয়াবহ রূপ নিয়েছে৷ সিলেটে কেন এত ঘন ঘন বন্যা? গবেষকরা বলছেন,...

কপিরাইট Ⓒ ২০১২-২০২১ নিউজবিডি৭১.নেট । সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। বাড়ী- ৪৯ (১ম তলা), রোড- ১২, সেক্টর-১১, উত্তরা মডেল টাউন, ঢাকা-১২৩০, বাংলাদেশ। প্রকাশক- মোহাম্মদ মানিক খান